Joy Guru thakur -Anusruti


মানুষের পথ প্রদর্শক কে -মানুষ ভুলেছে কী তার আদর্শ - কে তার অমৃত -পরিবেশী আপনার একান্ত দরদী জন। জয়গুরু ঠাকুর অনুকুল চন্দ্র র এই বাণী গুলোর মাঝে আছে মানুষ জন্মাবার সার্থক উপায়।
            🍂🍂 আশীষ বাণী🍂🍂৪*

শ্রীশ্রীঠাকুর অনুকূলচন্দ্র নিঃসৃত শ্রুতি-বাণী গ্রন্থ 'অনুশ্রুতি' প্রথম খণ্ড থেকে :-

                 *ধর্ম্ম*

অন্যে বাচায় নিজে থাকে
ধর্ম্ম বলে জানিস তা'কে ।
                                        । ১।

ধর্ম্মে সবাই বাঁচে-বাড়ে
সম্প্রদায়টা ধৰ্ম্ম না রে ।
                                       । ২।

ধর্ম্মে জীবন দীপ্ত রয়
ধৰ্ম্ম জানিস একই হয় ।
                                       । ৩ ।

যত জানিস ধর্ম্ম ব'লে
মূলে সব এক-গজিয়ে চলে ।
                                       । ৪ ।

দর্শনেরই বস্তাবাহী
বলদ নয়কো, সাধু যা'রা ,
বরং পটু ন্যায়ের যোদ্ধা
বিধির বাহক জানিস তা'রা ।
                                        । ৫।

এক ত্রাতা এক প্রাণ
মন্ত্র একে অধিষ্ঠান ।
                                        । ৬।

সম্বেগ-হারা কর্মপ্রাণ
আধ্যাত্মিকতার বন্ধ্যা টান ।
                                       । ৭ ।

আধ্যাত্মিকতা অবশ যা'র
কর্ম্মপ্রেরণা মূঢ় তা'র ।   
                                     । ৮।

ইষ্টরাগে বিধির পথে
উপচয়ে চলা ,
একই বলে ধর্ম্ম খাঁটি
নইলে নিষ্ফলা ।            । ৯।


🌼🌼🌼🌼🌼🌼🌼🌼🌼🌼
                  *ধর্ম্ম*

তথাগতদের মধ্যে বিভেদ
করে যে-জন সে আর্য্যক্লেদ ।
                                             । ৪৩ ।

কৃষ্ণ-রসুল বিভেদ ক'রে
বুদ্ধ-ঈশায় প্রভেদ গণিস,
আরে ওরে ধর্ম্মকসাই
কুটিল দোজখ মনেই রাখিস;
এক বাপেরই পাঁচটি ছেলে
দেখলি না তুই চোখটি মেলে,
কাউকে বাপের করলি স্বীকার
কাউকে বললি নয়,
কা’রে রে তুই দিলি ধিক্কার
গাইলি কাহার জয় ?
                                             । ৪৪ ।

ধৰ্ম্মবিধি সবই সমান
দেখতে শুধুই রকমফের,
লাখ সম্প্রদায় থাক না কি তা’য় ?
রইলে একই ইষ্টজের ।
                                             । ৪৫ ।

পূর্ব্বপুরুষ জাত-গরিমা
জানিস যা'তে ছাড়তে হয়,
এমনতর ধর্ম্মবাণী
জগদগূরুর নিছক নয় ।
                                             । ৪৬ ।

"পূর্ব্বপুরুষ চেতন-ধারা
ধৰ্ম্মে যদি ছাড়তে হয়,
জোর গলাতে বলছি আমি
নিছক সেটি ধর্ম্ম নয় । "
                                             । ৪৭ ।


🌼🌼🌼🌼🌼🌼🌼🌼🌼🌼🌼
                   *ধর্ম্ম*

"পারম্পৰ্য্যে ইষ্টজেরটি
যখনই যে ভাঙ্গল,
গণসমষ্টির ব্যষ্টিমূৰ্ত্তি

  • তখনই সে মারল । "

                                             । ৪৮ ।

"পূর্ব্বতনে বাতিল ক'রে
যারাই ছড়ায় ধর্ম্মজাল,
আর সবারে সাবাড় ক'রে
তা'রাই চায় থাকতে বাহাল ।"
                                             । ৪৯ ।

"পূর্ব্বপুরুষ ধরণ-ধারণ
পূরণ-পথে নবীন গড়ন,
অভ্যুদয়ী চলন-চালন
ধৰ্ম্মেরই এই উৎক্রমণ ।"
                                             ।  ৫০ ।

"মতবাদে জাতের ফারাক
ইষ্ট-তফাতে বংশভেদ,
ধৰ্ম্ম-ধারার চলন-চালে
হয় না জানিস জাত-বিভেদ ।"
                                             ।  ৫১ ।

"ঈশ্বরেরই উপাসনায়
হিংসা-সাধন পশুবলি,
বিশ্বপ্রভু নেন না তাহা
যায় না তাঁ'তে সে-সকলই ।"
                                             । ৫২ ।

"জীবন-বৃদ্ধির আরাধনায়
অহিংসাভরা অনুষ্ঠানে,
রকমারি আবেগ-চলন
উদ্দেশ্য এক ভগবানে,
থাকেও যদি এমনতর
প্রকারভেদ সাধনার--
ধর্ম্মযুদ্ধের দোহাই দিয়ে
আনলে বিরোধ নরক তা'র ।"     । ৫৩ ।                       
🍁🍁আশীষ বাণী 🍁🍁 *২৪

 " হিংসা-দ্বেষী বৃত্তিবিধুর
পালন-পূরণ মিলন-হারা,
চতুর চালে ধর্ম্মনীতির
সমর্থনে দিয়ে কাড়া,
ভরদুনিয়ার প্রেরিতদের
কা'রও ভক্তি-অছিলায়
অন্য প্রেরিত-নীতির দলন
করতে যদি কেহ ধায়,
তা'রেই নিছক কাফের জানিস
ধর্ম্মদ্রোহের কারণ সেই ;
তা'কে আশ্রয়-প্রশ্রয় দেওয়া
অবজ্ঞা সে ঈশ্বরেই । "
                                             । ৫৪ ।

"ইষ্টতীর্থ আরাধনার
ম্লেচ্ছীদলন জানতে পেলে
প্রাণশক্তি বুদ্ধিশক্তি
শরীরশক্তি সকল ঢেলে -
নিপাত করি’ সেই দলনে
ইষ্টতীর্থ-আরাধনার
গৌরব-স্তম্ভে অটুট ক'রে
অটল রাখলে প্রতিষ্ঠার,
ধৰ্মযুদ্ধ তা'কেই বলে
এমন আহব করলে জয়,
শক্তরাগে বৃত্তিগুলি
ইষ্টস্বার্থে গ্রথিত হয় ;
আবেগভরা ইষ্টটানের
আগলভাঙ্গা ঝটিত বেগে
অতিপাতকীর ঝলক-তপে
স্বর্গ লভে দীপক রাগে ।"
                                             । ৫৫ ।
           🍂🍂 আশীষ বাণী 🍂🍂*২৬

শ্রীশ্রীঠাকুর শ্রীমুখ নিঃসৃত শ্রুতি বাণী গ্রন্থ 'অনুশ্রুতি' প্রথম খণ্ড থেকে নেওয়া :-

                *ধর্ম্ম*

" শিষ্য-গুরুর ভেদ গণে না
এক নজরে ভজে,
ধৰ্ম্ম তাহার দ্বিধা হ'য়ে
দুর্ব্বিপাকেই মজে ।
                                             । ৫৬ ।

পূৰ্ব্ব ঋষি মানে যা'রা
এক আদর্শ ভিন্ন ধারা ।
                                             ।  ৫৭ ।

প্ররিতে যে প্রভেদ করে
অন্ধ তমোয় সাবাড় করে ।
                                             । ৫৮ ।

ধৰ্ম্ম যেখানে বিপাকী বাহনে
ব্যর্থ অর্থে ধায়,
তখনি প্রেরিত আবির্ভূত হন।
পাপী পরিত্রাণ পায় ।
                                             ।  ৫৯ ৷

আপ্তপূরণ ধারাটি তোর
বাতিল ক'রে অকৃতজ্ঞ,
সেই হৃদয়টি নিয়ে যাচ্ছিস
প্রেরিতে ধ’রে হ’তে প্রজ্ঞ ?
কায়দা-কলম ভণ্ডামি তোর
খাটতে পারে মানুষের কাছে,
ভাবিস পাবি পাগল অজান
রেহাই বিধির বান্দার কাছে ?
                                             । ৬০ ।

জগৎমাঝে যে জাত-সমাজ
উচু-নীচু যেই না জন,
পূরণ-প্রবন--সাধু-প্রেরিত
নমস্য সবার তাঁ'রাই হন ।
                                             । ৬১ ।                                                                                                        🍂🍂 আশীষ বাণী 🍂🍂১৯*

                 *নীতি*

" গনকে যদি গুরুর পূজায়
বাড়িয়ে তুলতে পারিস,
সাফল্য তোর সামগানেতে
ভ'রেই তুলবে দিশ ।
                                           । ৮১ ।

হামবড়ায়ী স্পর্দ্ধী নেশার
যখনই যে ব্যাঘাত হানে,
তখনই তা' মুষড়ে গিয়ে
ফোলেই ক্রোধে অভিমানে ।
                                             । ৮২ ৷

ভাল-প্রয়াসী মন্দ যা'
সেও তো ভাল ঢের,
ভাল-মুখোস মন্দ ঘৃণ্য,-
লোকে পায় না টের ।
                                             । ৮৩ ।

অর্থ যখন সবার স্বার্থ
বিশিষ্টতায় করে পূরণ,
সাম্যে ভরা সেই নীতিটা
সাম্য-নাচেই নাচে তখন ।
                                             । ৮৪ ।

উদভাবনী বুদ্ধি-হারা
একঘেয়ে যা’র উপাৰ্জ্জন
যোগ্যতাহীন বুদ্ধি বেকুব
সেই মানুষই হয় কৃপণ ।
                                             । ৮৫।

চিন্তা যদি একপেশে হয়
সঙ্গতি সব বাদ দিয়ে,
বুঝের মাথা ঘায়েল ক’রে
আসবে দম্ভ অবুঝ নিয়ে ।
                                             । ৮৬ ৷

রোগ বা বিশেষ কারণ ছাড়া
কর্তা, চাকর আর স্বজনে
সমান খাবার, ন্যায্য তোষণ --
চলেই এমন শ্রেষ্ঠগণে ।
                                             । ৮৭ ।


🌼🌼🌼🌼🌼🌼🌼🌼🌼🌼🌼
                   *নীতি*২১*

"একের স্থিতি অন্যের টানে
অন্যে একের পানে,
এমনি ক'রেই সত্তা সকল
চ'লছে র'য়ে স্থানে ।"
                                             । ৮৮।

"যা' পেয়ে যে বাঁচাবাড়ার
চলায় যত উন্নত,
তাই বুঝে তা’ করলে রে দান
সাৰ্থক সে দান হয় তত । "
                                             । ৮৯ ৷

"বড়র মত চাল মারিস তুই
চালিয়াতি চাল ধ'রে,
অভ্যাস, ব্যবহার, দক্ষতা আন-
নইলে বড় কী ক’রে ? ।"
                                             । ৯০ ।

"এক লহমার বেফাঁস কথা
চিন্তা, কৰ্ম্ম, আলোচনা,
ছোটেই নিয়ে পিছু-পিছু
দুরদৃষ্টের কী লাঞ্ছনা !"
                                             । ৯১ ।

"বিধির নীতির একটু ব্যাঘাত
একটু অবহেলা তা’র,
আকাশ-পাতাল তফাৎ করে
দুঃস্থি আনে অবস্থার । "
                                             । ৯২ ।

"শ্রেষ্ঠ জনে করলে প্ৰণাম
নিয়ত মাথা ঠেকিয়ে পায়,
নিজের ভাল হ'লেও কিন্তু
তাঁর আয়ুটি ক্ষ’য়েই যায় ।"
                                             । ৯৩ ।

"এমন তাপের করবি সৃজন
অত্যাচারের হয় নিকেশ,
অনুতপ্ত অত্যাচারীর
রয় না যা'তে পাপের লেশ ।"
                                             । ৯৪
🌺🌺🌺🌺🌺🌺🌺🌺



              *নীতি*

যে দায়িত্ব নেবে যাহার
ঝটিতি কর তা',
কথা দিলেই করবে যা'তে
রয় না কৃতঘ্নতা ।
                                             । ৯৫।

যুক্তি-কারণ না বাতলে তুই
উড়িয়ে দিস না কারু কিছু,
বাতলে শুভ মন্দে বাতিল
করলে আসে শুভই পিছু ।
                                             । ৯৬ ।

পুরাতনের চৰ্য্যা নিয়ে
নূতনে ক’রে স্থিতি,
আদর্শেতে চলবি সাধু --
এই তো চলার নীতি ।
                                             । ৯৭ ।

দান ক'রে যে হরণ করে
কিংবা বেশী লয়,
কুহক-ঝরা কুদিন এসে
সকলই করে ক্ষয় ।
                                             । ৯৮ ৷

বিধি কিন্তু নয়কো জ্ঞানী,
নয়কো জ্যান্ত, নয় চেতন --
ইষ্টানুগ বেতা-জ্ঞানীর
জ্ঞানেই বিধির নিয়ন্ত্রণ ।
                                             । ৯৯ ।

বিধির নীতির একটু বেচাল
একটু বেসামাল,
দক্ষতাহীন শিথিল চলন
ভাঙ্গেই জীবন-তাল ।
                                             । ১০০ ।

নিন্দা-কথায় কান দেয় যে
মোকাবিলায় মিলায় না,
অনাহূত পাতিত্য পায়
শুভ তা'রে চালায় না ।
                                             । ১০১ ।

🌼🌼🌼🌼🌼🌼🌼🌼🌼
               *নীতি*

"জীবনধারার সহজ ঝোঁকেই
ধরে চলা নীতির পথ,
বৃত্তিমুখর প্ররোচনা
বাঁকিয়ে ধরায় নীতি অসৎ ।
                                             । ১০২ ৷

অসৎ কৰ্ম্ম করবি না আর
প্ৰায়শ্চিত্তে শুদ্ধ হ’বি,
এই নীতিতে অপকর্মীর
পরিত্রাণে যত্ন ল’বি ।
                                             । ১০৩ ।

কারু বিষয় ভালমন্দ
বুঝলেও কিন্তু মনে বেশ,
বলতে বলিস হিসেব ক'রে
নইলে পাবি শুধুই দ্বেষ ।
                                             । ১০৪ ।

কাজ ও কথায় অমিল যেথায়
লোক-ভাঁড়ান গোপন চলন,
এমন চলায় নিছক জানিস
লুকিয়ে আছে কুটিল পতন ।
                                             । ১০৫ ৷

ভাল বললেও উলটো বোঝে
রূঢ় ভাষায় প্রতিদান,
স্বৰ্গও যদি মর্ত্যে আসে
তৃপ্তিতে তা'র নাইকো স্থান ।
                                             । ১০৬ ।

কুহক-বিধুর কৃতজ্ঞতা
ন্যায়পরতা, নীতির টান,
ইষ্টহারা অনৰ্থেতে
করেই জীবন অবসান ।
                                             । ১০৭ ৷

মিত্ৰদ্রোহী কৃতঘ্ন যে
বিশ্বাসঘাতক,
তা’র সঙ্গ সাহচর্য্য
অনন্ত নরক । 
                                             । ১০৮ ।
🌸🌸🌸🌸🌸🌸🌸🌸🌸🌸🌸🌸🌸🌸🌸🌸

                 *নীতি*   *27

"যেমন করায় যা' ফল মেলে
তেমনি যদি না কর তা’,
প্রাপ্তিপথে ব্যাঘাত আসে
দুঃখ সহ ব্যর্থতা ।
                                             | ১০৯ |


চিন্তাগুলি কৰ্ম্মে যতই
বিচ্ছুরিয়ে মূর্ত হয়,
মগজটা তাের অমনি হ'লেই
উত্তেজনা-মুক্ত রয় ।
                                             | ১১০ |


উপদেশ আর বুদ্ধিদানই
আত্মপ্রসাদ যা’র আনে,
রিক্ত-কৰ্ম্মা এমন জনার
সার্থকতা নাই প্রাণে ।
                                             | ১১১ |


যে সময়ে লাগবে যা’-যা’
গুছিয়ে আগেই ব্যবস্থিতি,
করে সদা তৈরী থাকা
দক্ষকৃতীর স্বভাব-নীতি ।
                                             | ১১২ |


অৰ্জ্জনাকে বাড়তি রেখে
ব্যয়টাকে কর নিয়ন্ত্রণ,
এমনতর চলিস্ যদি
চলনা পাবে স্থিত-চলন ।
                                             | ১১৩ |


বুকের পাঁজর চূর্ণ ক'রেও
সুখী করার সব প্রয়াস,
এক লহমার চলা-বলা
ঘৃণ্য হ'লেই সব নিকাশ ।
                                              | ১১৪ |


সজাগ সন্ধিৎসা নিয়ে
চলাই ভাল সৰ্ব্বদাই,
কোন অবস্থায় কীই বা ভাল
আগাম ভেবে করবি তা'ই ।"
                                             | ১১৫
      🍃আশীষ বাণী🍃*২৮

                 *নীতি*

"শাস্তি দেওয়ায় শান্তি যদি
নাই আনতে পারে,
মাছি-বওয়া সংক্রমণায়
শাস্তি ছিটবে না রে ?
                                             | ১১৬ |

তাচ্ছিল্যই যদি থাকে—
অবুঝ হ’তে ভাবনা কিসের ?
ব’সে পাবি তুই তা’কে !
                                             | ১১৭ |

যে-ভাব নিয়েই থাকিস না—
সেই ভাবেরই দক্ষতাতে
চলবি রে তুই জানিস না ?
                                             | ১১৮ |

স্মৃতির বুকে অযুত নীতির
হীরক-মাণিক জ্বলে,
সেইটি বুঝে কুড়িয়ে পরিস
সুফল যা'তে ফলে ।
                                             | ১১৯ |

অস্তিত্ব সহ আদর্শকে
সার্থক পূরণ করে,
এইটি বুঝে কহিস করিস
ঠকবি নাকো পরে ।
                                             | ১২০ |

পাওয়া-দেওয়ার মাঝখানে-
চলে জীবন পুষ্টি পেয়ে
স্বস্তি-পায়ে—সাবধানে ।
                                             | ১২১ |

শােক যদি রে তুলতে পারে
করায় বলায় স্বর্গপানে,
তবেই তা'কে রাখবি ধ'রে—
নইলে ছিড়িস সটান টানে ।
                                             | ১২২ |

‘না’- সুন্দরী বধু যা’র
'হয় না’ - যা’র শালা,
অলক্ষী তা'র ধরে এসে
সব করেছে কালা । "
                                             | ১২৩ |



🌸🌸🌸🌸🌸🌸🌸🌸🌸🌸🌸
                 🌻  জয় গুরু 🌻



Comments

Unknown said…
Joy Guru
Banigolo darun

Popular posts from this blog

Life -style -of thakur

पर्यायवाची शब्द-Paryayvachi Shabd (Synonyms Words)